‘আমি জামাত শিবিরের লোক নই’

প্রথম পাতা » পটুয়াখালী » ‘আমি জামাত শিবিরের লোক নই’
সোমবার ● ১১ অক্টোবর ২০২১


লিখিত বক্তব্য পাঠ করছেন জাকির মৃধা।

কলাপাড়া সাগরকন্যা অফিস॥
‘আমি জামাত শিবিরের লোক নই, আমি আওয়ামী লীগের একজন কর্মী। বিগত দিনে স্থানীয় সরকার নির্বাচনসহ সংসদ নির্বাচনে নৌকার এজেন্ট হিসেবে দায়ীত্ব পালন করেছি। মূলত জমি সংক্রান্ত বিরোধে মিথ্যা মামলাসহ সাংবাদিক ভাইদের ভূল তথ্য দিয়ে আমার মান সম্মান বিনষ্ট ও সামাজিক ভাবে হেয় প্রতিপন্ন করার জন্যই এমন আপপ্রচার চালানো হচ্ছে।’ সোববার বেলা ১১ টায় কলাপাড়া রিপোর্টার্স ইউনিটির অস্থায়ী কার্য়ালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এমন দাবী জানান ভুক্তভোগী জাকির মৃধা। এসময় লালুয়া ইউপির ৮ নং ওয়ার্ড যুবলীগের সাবেক সভাপতি মোস্তফা গাজী, স্থানীয় ভদ্দর পাহলান, গাজী আনিসুর রহমান, নজরুল ইসলাম মৃধাসহ ইউনিটির সভাপতি সম্মাদক ও সকল সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠের মাধ্যমে জাকির মৃধা বলেন, আমি একজন সাধারণ কৃষক। কৃষি কাজের মাধ্যমেই আমি পরিবার নিয়ে জীবীকা নির্বাহ করে থাকি। আমি ২০০৮ সালে জনৈক রওশনআরা রুমার কাছ থেকে রেজিষ্ট্রি দলিলের মাধ্যমে  ১৭ নং জে-এল চান্দুপাড়া মৌজার এসএ ২৪৯, ৮৩ ও ১৭২ নং খতিয়ান থেকে ২ একর ৬৫ জমি ক্রয় করি। উক্ত সম্পত্তির সঠিক বুঝ না পাওয়ায় জমির মূল দাতা আজমাদ গাজীর সাথে আমার বাকতিন্ডার সৃষ্টি হয়। এমনকি আমার ক্রয়কৃত জমির দখল নিতে গেলে আমজাদ গাজী আমাকে ভয়ভীতি প্রদর্শন করে। পরবর্তীতে জমির কাগজ সংশোধন করার কথা জানিয়ে আমার কাছে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবী করে। এছাড়া গত ০১/০৮/২১ তারিখে  ওই জমিতে সীমানা নির্ধারণ করতে গেলে আমজাদ গাজী দলবল নিয়ে আমার বোন কহিনুরসহ আমাদের উপর অতর্কিত হামলা চালিয়ে আমাদের ক্ষতবিক্ষত করে। পরে নিরুপায় হয়ে বিজ্ঞ আদালতে একটি মামলা আনায়ন করি। এত ক্ষিপ্ত হয়ে অপপ্রচারকারীরা আমাদের বিরুদ্ধে দ্রুত ট্রাইবুনাল আদালতে একটি মিথ্যা মামলা দায়ের করে। যার কোন সত্যতা নেই। তিনি আরো বলেন, এভাবে অন্তত আমাদের বিরুদ্ধে ১১টি মিথ্যা মামলা দিয়ে আমাদের হয়রানি করে আসছে আমজাদ গংরা। সবশেষে ৯ অক্টোবর লালুয়া মুক্তিযোদ্ধা বাজারে মানববন্ধন করে আমার বিরুদ্ধে মানহানিকর বক্তব্য উপস্থাপন করা হয়। মানববন্ধনে আমাকে সামাজিকভাবে হেয় প্রতিপন্ন করার লক্ষে সাংবাদিক ভাইদের কাছে জামাত শিবির আখ্যা দিয়ে মিথ্যা তথ্য প্রদান করে। যা বিভিন্ন পত্রিকা ও অনলাইল পোর্টালে প্রকাশিত হয়। আদৌ এর কোন সত্যতা নেই। মূলত জমি দখলের পায়তারায় লিপ্ত হয়ে আমি আওয়ামী লীগের একজন ত্যাগী কর্মী হয়েও আমার বিরুদ্ধে জামাত শিবিরের তকমা লাগিয়ে দেয়ার অপচেষ্টা চালানো হচ্ছে। তিনি বলেন, আমি এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। এছাড়া সংবাদ কর্মীদের সরেজমিনে তদন্ত করে নিউজ প্রকাশের অনুরোধ জানান তিনি। এবিষয়ে  আমজাদ গাজীর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, মানববন্ধনে আমি ছিলাম কিন্তু জামাত শিবির আমি বলিনি। এছাড়া জমি নিয়ে কোন বিরোধ নেই মূলত একটি স্লুইজ গেট নিয়ে মামলা রয়েছে। এতে আমাকে আসামী করা হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৬:৫৪:৩৩ ● ৫১ বার পঠিত




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

আর্কাইভ