কলাপাড়ায় নারী খাদ্য পরিদর্শকের অনৈতিকতার অভিযোগে তদন্ত শুরু

প্রথম পাতা » পটুয়াখালী » কলাপাড়ায় নারী খাদ্য পরিদর্শকের অনৈতিকতার অভিযোগে তদন্ত শুরু
রবিবার ● ১২ সেপ্টেম্বর ২০২১


 

খাদ্য পরিদর্শক আরিফা সুলতানা

কলাপাড়া সাগরকন্যা অফিস॥ 

পটুয়াখালীর কলাপাড়া খাদ্য অধিদপ্তরের নারী খাদ্য পরিদর্শক আরিফা সুলতানার সাথে একজন ওএমএস ডিলারের অনৈতিক কর্মকান্ডের অভিযোগের তদন্ত শুরু করেছে খাদ্য অধিদপ্তরের গঠিত তদন্ত কমিটি। সোমবার ঝালকাঠি জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো: তানভির হোসেন’র নেতৃত্বে এক সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি তদন্ত শুরু করবেন বলে জানিয়েছেন পটুয়াখালী জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো: লিয়াকত আলী।

 

এর আগে উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিসের নারী খাদ্য পরিদর্শক আরিফা সুলতানা’র সাথে ওএমএস ডিলারের অনৈতিক কর্মকান্ডের অভিযোগে কলাপাড়া থানায় সাধারন ডায়েরী দায়ের করেন পৌরশহরের ইসলামপুর এলাকার মোসা: মাসুমা আক্তার কলি। তিনি প্রতিকার পেতে কলাপাড়া ইউএনও বরাবর একটি লিখিত অভিযোগও দায়ের করেন। মাসুমা আক্তার সাধারন ডায়েরীতে উল্লেখ করেন, খাদ্য পরিদর্শক আরিফা সুলতানা তার স্বামী ওএমএস ডিলার মামুন হাওলাদার’র সাথে দীর্ঘ ১ বছর ৬ মাস পরকীয়ায় লিপ্ত হয়ে অনৈতিক কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছেন। বিষয়টি অফিস পাড়ায় মুখরোচক আলোচনায় পরিনত হয় বেশ ক’দিন। গনমাধ্যমে উঠে আসে নারী খাদ্য পরিদর্শক’র এ কীর্তি। এরপর বরিশাল আঞ্চলিক খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো: জাহাঙ্গীর হোসেন এ ঘটনার তদন্তে ঝালকাঠি জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো: তানভির হোসেন’র নেতৃত্বে এক সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করে তদন্তের নির্দেশ দেন।

 

এ বিষয়ে তদন্ত কমিটির প্রধান ঝালকাঠি জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো: তানভির হোসেনের সাথে যোগাযোগের জন্য তার মুঠো ফোনে একাধিকবার সংযোগ স্থাপনের চেষ্টা করেও সংযোগ পাওয়া যায়নি।

 

এদিকে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একটি সূত্র জানিয়েছে পটুয়াখালী জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক লিয়াকত আলী, ঝালকাঠি জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো: তানভির হোসেন ও বরিশাল আঞ্চলিক খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো: জাহাঙ্গীর হোসেন এখন কলাপাড়ার পথে আছেন। আজ বিকেলে তারা কলাপাড়া খাদ্য গুদাম পরিদর্শন শেষে কুয়াকাটায় রাত্রি যাপন করবেন। এজন্য বিলাসবহুল হোটেল কক্ষ বুকিংসহ ভোজন বিলাসী মেন্যু সমৃদ্ধ খাবারের অর্ডার করা হয়েছে।

 

বাংলাদেশ সময়: ২১:৩৪:৪১ ● ১৫৯ বার পঠিত




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

আর্কাইভ