ধূলাসার ইউপি নির্বাচন তৃণমূলের ভোটে আ’লীগের প্রার্থী মোদাচ্ছের!

প্রথম পাতা » পটুয়াখালী » ধূলাসার ইউপি নির্বাচন তৃণমূলের ভোটে আ’লীগের প্রার্থী মোদাচ্ছের!
বৃহস্পতিবার ● ১২ মে ২০২২


ধূলাসার ইউপি নির্বাচন- তৃণমূলের ভোটে আ’লীগের প্রার্থী মোদাচ্ছের!

কলাপাড়া (পটুয়াখালী) সাগরকন্যা অফিস॥

 

 

পটুয়াখালীর কলাপাড়া উপজেলার ধূলাসার ইনিয়নে আওয়ামী লীগের দলীয় প্রতীক নৌকা কে পাচ্ছে তানিয়ে এলাকায় চলছে নানান জল্পনা কল্পনা। ঝড় উঠছে চায়ের টেবিলে। তৃণমূল কাউন্সিল  শেষে কাউন্সিলরদের ভোটে ধূলাসার ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সম্পাদক মো. মোদাচ্ছের হাওলাদার ৪৯ ভোট পেয়ে ১ম, মহিপুর থানা স্বেচ্ছাসেবক লীগ সভাপতি মো. হারুন তালুকদার ১৯ ভোট পেয়ে ২য় এবং বর্তমান চেয়ারম্যান আ: জলিল মাস্টার ৬ভোট পেয়ে ৩য় হয়েছেন। সাধারণ ভোটার ও দলের ত্যাগী নেতাদের দাবি নেত্রী দলের হাইব্রিড নেতাদের মনোনয়ন দিলে ধুলাসারে নৌকার প্রার্থীর পরাজয় ঠেকানো সম্ভব হবেনা।

সরেজমিনে জানা যায়, ধুলাসার ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের তৃনমূলের ভোটে বিজয়ী মোদাচ্ছের হাওলাদারকে চেনেনা তৃনমূলের অধিকাংশ ভোটার। এক প্রভাবশালী নেতার হস্তক্ষেপে গত ৫ মে ধুলাসার ইউনিয়ন কমিটির কাউন্সিলের ভোটে সে নৌকার প্রার্থী হিসেবে মনোনীত হলেও ইতিমধ্যে তার বিরুদ্ধে একাট্রা হয়েছে আওয়ামীলীগের ত্যাগী নেতারা। তারা স্বতন্ত্র নির্বাচনেরও ঘোষণা দিয়েছেন। এতে কলাপাড়ার ধানখালী, লালুয়া, মহিপুর, চাকামইয়া, টিয়াখালী ও কুয়াকাটা পৌরসভার মতো নৌকার প্রার্থীর পরাজয়ের শঙ্কা রয়েছে।

এ ব্যাপারে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি ইউনুস দালাল বলেন, মো. মোদাচ্ছের হাওলাদার কাগজে কলমে ২০১০ সালে আওয়ামীলীগে যোগ দিলেও তাকে ২০১৯ সালে ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের কাউন্সিলে সাত নং ওয়ার্ড থেকে সাধারণ সম্পাদক পদ দিতে পারেন নি জনসমর্থণ না থাকায়। তবে সে ঠিকই পেয়ে গেছেন ধুলাসার ইউনিয়ন আওয়ামীগের সাধারণ সম্পাদকের পদ। তাও বিনা কাউন্সিলে। ধুলাসার ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জাকারিয়া খলিফা জানান, প্রধানমন্ত্রী যাকে নৌকা দেবেন তার পক্ষে দল কাজ করবে।

এ ইউনিয়নে নৌকার মনোনয়ন চাচ্ছেন বর্তমান চেয়ারম্যান জলিল আকন ও মহিপুর থানা সেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি হারুন-অর রশিদ তালুকদার। যারা মাঠ পর্যায়ে দীর্ঘদিন সাধারণ মানুষের পাশে থেকে কাজ করছেন। এছাড়া স্বতন্ত্রভাবে একাধিক দলীয় প্রার্থীর নাম শোনা যাচ্ছে। প্রার্থী নির্বাচনে ভুল হলে ধুলাসার ইউনিয়নেও কলাপাড়ার অন্য পাঁচটি ইউনিয়নের মতো নৌকার প্রার্থী পরাজিত হতে পারে বলে আশংকা করছেন দলের ত্যাগী নেতা ও সাধারণ ভোটাররা।

তৃনমূলের ভোটে বিজয়ী মোদাচ্ছের হাওলাদার বলেন, ২০১০ সাল থেকে সে আওয়ামীলীগ করেন। দলীয় সকল কর্মকান্ডে তিঁনি গুরুত্ব দিয়ে কাজ করেন। তাই তৃনমূল নেতাদের ভোটে তিনি বিজয়ী হয়েছেন। আর দল যাকে মনোনয়ন দেবেন তার পক্ষে কাজ করবেন।

এ ব্যাপারে কলাপাড়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মোতালেব তালুকদার বলেন, তৃনমূলেল ভোটে মোদাচ্ছের হাওলাদার সর্বোচ্চ ভোট পেয়েছে। দলের সবাই যদি ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করে তাহলে নৌকার প্রার্থী বিজয়ী হবেন বলে আশা করছেন।

 

 

এসকেআর/এমআর

 

বাংলাদেশ সময়: ২০:২৬:০১ ● ১০০ বার পঠিত




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

আর্কাইভ