গলাচিপায় স্ত্রীর মর্যাদা চেয়ে তরুণীর অনশন!

প্রথম পাতা » পটুয়াখালী » গলাচিপায় স্ত্রীর মর্যাদা চেয়ে তরুণীর অনশন!
শুক্রবার ● ১৯ এপ্রিল ২০২৪


গলাচিপায় স্ত্রীর মর্যাদা চেয়ে তরুণীর অনশন!

গলাচিপা(পটুয়াখালী) সাগরকন্যা প্রতিনিধি॥

পটুয়াখালীর গলাচিপায় স্ত্রীর স্বীকৃতি পেতে অন্তরা রানী শীল (২২)নামের এক তরুণী অনশন করছেন অনুপম ভূইয়া (৩০) নামের এক যুবকের বাড়িতে । বৃহস্পতিবার বিকাল থেকে গলাচিপা পৌরসভার ৯নং ওয়ার্ডের গলাচিপা সরকারী হাসপাতালের দক্ষিণ পাশে শের-ই বাংলা রোড এলাকায়। এই তরুণী বরিশাল ৩০নং ওয়ার্ডের বাশতলা, কাশিপুর এলাকার কৃষ্ণ চন্দ্র শীলের মেয়ে। সে বরিশাল বিএম কলেজের ব্যবস্থাপনা বিভাগের শেষ পর্বের ছাত্রী। স্ত্রীর মর্যাদা না পেলে আত্মহত্যার হুমকিও দিয়েছেন ওই তরুনী। এ বিষয়ে তিনি সর্ব মহলের প্রশাসনকে অবহিত করেছেন এমনকি সংবাদকর্মীদের সহযোগিতাও চেয়েছেন। এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত দুই দিন ধরে অন্তরা রানী শীল অনুপম ভূইয়ার বাড়ীতে অবস্থান করছে।
জানা গেছে, অন্তরা রানী শীল গলাচিপা পৌরসভায় বৃহস্পতিবার আসেন। বিকেল থেকে ৯নং ওয়ার্ডের শেরই বাংলা রোড এলাকায় এ্যাডভোকেট অরুন ভূইয়ার প্রথম পুত্র অনুপম ভূইয়ার বাড়িতে অবস্থানসহ অনশন শুরু করে। এ সংবাদ মূহুর্তের মধ্যে  ছড়িয়ে পড়লে ওই বাড়িতে গভীর রাত পর্যন্ত স্থানীয়রা ভীড় করতে থাকে। অনশনকারী ওই তরুনী জানায়, তার মামা তাপস শীল এক সময় অনুপমের বাড়ীতে ভাড়া থাকতো। সেই সুবাদে তাদের বাসায় বেড়াতে আসতেন। বেড়াতে আসা-যাওয়ার সুবাদে অনুপমের সঙ্গে তার পরিচয়। দীর্ঘ আট বছর ধরে অনুপমের সংগে প্রেমের সম্পর্ক চলছে। বিভিন্নস্থানে এমনকি পর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটায় তাকে ঘুরতেও নিয়ে যান অনুপম। ঘুরতে গিয়ে বরিশালের একটি মন্দিরে নিয়ে তাঁকে শাখা-সিঁদুর পরিয়ে বিয়ে করেন। তিনি আরও বলেন, বিয়ের আগে ও পরে অনুপম আমার সঙ্গে অসংখ্যবার শারীরিক ভাবে মেলামেশা করেছেন। তার প্রমানও রয়েছে। এরপর হঠাৎ যোগাযোগ বন্ধ করে দেয় অনুপম। সরকারী চাকুরী করবে বলে বিয়ের কথা গোপন রাখতে মিথ্যে প্রলোভন দেয় অনুপম ভূূইয়াঁ। এর পর থেকে আজ কাল করে বছরের পর বছর ঘুরাতে থাকে,  অনুপম এর অন্যেত্রে বিয়ের খবর শুনে  অন্তরা রানী শীল স্বামীর অধিকার নিয়ে ওই বাড়িতে প্রবেশ করতে চাইলে অনুপমের পরিবার তার সঙ্গে খারাপ আচরণসহ বাড়ীর বাইরে বের করে দেয়ার চেষ্টা চালায় স্বামী অনুপম এর বাবা অরুন  ভূইয়া। স্বামীর  অধিকার আদায়ের জন্য আমরণ অনশন করে আত্মহত্যা করবে বলে হুমকিও দেয়। খবরটি ইতিমধ্যেই বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়াতে ছড়িয়ে পড়ছে। তার আর কোথাও ফিরে যাওয়ার সুযোগ নেই। অনুপম স্ত্রী হিসেবে গ্রহণ না করলে আত্মহত্যা ছাড়া তার কোনো পথ নেই বলে জানান ওই তরুনী। তাই স্ত্রীর স্বীকৃতির দাবিতে অনুপমের বাড়িতে অনশন করছেন। বর্তমানে অনুপম গা ঢাকা দিয়েছে। গলাচিপায় বিষয়টি এখন সবার মুখে মুখে।
গলাচিপা থানার অফিসার ইনচার্জ ফেরদৌস আলম খান বলেন , খবর পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। মেয়ের সিকিউরিটির কথা চিন্তা করে মহিলা পুলিশ নিয়ে রাতে থানা হেফাজতে তরুনী কে রাখা হয়েছে। সমাধান না হলে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।এ ব্যাপারে গলাচিপা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মহিউদ্দিন আল হেলাল জানান, বিষয়টি অবগত আছি। দুই পরিবারকে ডেকে সমাধানের চেষ্টা করছি।

 

 

এসডি/এমআর

বাংলাদেশ সময়: ২০:৪৭:২৬ ● ৫৪ বার পঠিত




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

আর্কাইভ