নাজিরপুরে মাদ্রাসাছাত্রীকে ধর্ষণের মামলা!

প্রথম পাতা » পিরোজপুর » নাজিরপুরে মাদ্রাসাছাত্রীকে ধর্ষণের মামলা!
বুধবার ● ৪ আগস্ট ২০২১


নাজিরপুরে মাদ্রাসাছাত্রীকে ধর্ষণের মামলা!

নাজিরপুর(পিরোজপুর)সাগরকন্যা প্রতিনিধি॥

পিরোজপুরের নাজিরপুরে মাসরাসা ছাত্রী (১৪)কে ধর্ষণের অভিযোগে খালাতো ভাই  আল-আমিন হাওলাদার (১৭) ও  মামাতো ভাই মেরাজুল ইসলাম ডাকুয়া (২১) এর নামে পৃথক দুইটি মামলা দায়ের হয়েছে। ওই ছাত্রীর পিতা বাদী হয়ে মঙ্গলবার (৩ আগষ্ট) রাতে থানায় এ মামলা দুটি দায়ের করেন।
অভিযুক্ত খালাতো ভাই আল-আমিন হাওলাদার উপজেলার শাঁখারীকাঠী ইউনিয়নের বাঘাজোড়া গ্রামের আবুল বাশার হাওলাদারের ছেলে এবং মামাতো ভাই মেরাজুল ইসলাম ডাকুয়া একই গ্রামের মোস্তফা ডাকুয়ার ছেলে। আর ওই মাদরাসা ছাত্রী বাগেরহাটের চিতলমারী উপজেলায় বাড়ি। সে  নাজিরপুর উপজেলার বাঘাজোড়া গ্রামে নানা বাড়িতে থাকে।
দায়ের হওয়া মামলা ও ভুক্তভোগীর পিতার দেয়া তথ্য মতে জানা গেছে, ওই মাদরাসা ছাত্রীর পিতা-মাতা কাজের জন্য খুলনায় থাকেন। আর এ  জন্য ওই মাদরাসা ছাত্রীকে লেখা-পাড়ার জন্য নানা বাড়িতে রেখে স্থানীয় একটি মাদরাসায় পড়ানো হতো। এ সময় খালাতো ভাই প্রেমের অভিনয় করে  গত  ৭ এপ্রিল সহ বিভিন্ন সময় ধর্ষন করে। এর পরে গত ২২ মে মামাতো ভাই তাকে জোর করে ধর্ষন করে। সম্প্রতি পিতা-মাতা বাড়িতে এলে ওই  মাদরসা ছাত্রী বিষয়টি তাদের জানায়। নাজিরপুর থানার অফিসার ইন চার্জ (ওসি) মো. আশ্রাফুজ্জামান জানান, ধর্ষকরা ভুক্তভোগী মাদরাসা ছাত্রীর মামাতো ও খালাতো ভাই হওয়ায় বিষয়টি স্থানীয়ভাবে মীমাংসার চেষ্টা চলে। ভুক্তভোগী মাসরাসা ছাত্রীকে মেডিকেল পরীক্ষার জন্য পিরোজপুর জেলা হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। অভিযুক্তদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

এএএইচ/এমআর

বাংলাদেশ সময়: ২০:৫৭:২৯ ● ১২১ বার পঠিত




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

আর্কাইভ